• বৃহস্পতিবার, ২০ সেপ্টেম্বর ২০১৮, ৫ আশ্বিন ১৪২৫
  • ||

সস্তা যৌনকর্মী

প্রকাশ:  ০৪ জানুয়ারি ২০১৮, ১৪:০৫
পূর্বপশ্চিম ডেস্ক
প্রিন্ট

অবাক হচ্ছেন? মনে মনে ভাবছেন না তো, এ-ও কি সম্ভব? অাবার ‘সস্তা বেশ্যা’ কথাটা শুনে আপনার চোখ কপালে উঠছে না তো? সে যায় হোক না কেন, এটা কিন্তু বাংলাদেশের কোনো যৌনপল্লীর ঘটনা নয়। বিষয়টা তাহলে খুলেই বলা যাক। নিউজিল্যান্ডে একটি মাধ্যমিক স্কুলে ছাত্র-ছাত্রীদের মধ্যে অতি-রক্ষণশীল যৌন শিক্ষার পুস্তিকা বিতরণ! যা নিয়ে সামাজিক যোগাযোগমাধ্যমগুলোতে চরম বিতর্ক দেখা দিয়েছে।

‘নিরাপদ যৌনজীবন’ বা ‘সেফ সেক্স’ নামের ওই পুস্তিকায় বিয়ের আগে যৌনসম্পর্ক করেছে এমন মেয়েদের বলা হচ্ছে সস্তা বেশ্যা।অাবার বিয়ে ছাড়াই একসঙ্গে থাকছেন এমন যুগলকে ‘মজ্জাগতভাবে দায়িত্বহীন ব্যভিচারী’ বলে বর্ণনা করা হয়েছে। এমনকি এই বইটিতে আরও উল্লেখ করা হয়েছে, ‘কেউ সমকামিতায় লিপ্ত হলে তার জন্য মৃত্যু ও নরক অপেক্ষা করছে।’

ক্রাইস্টচার্চের পাপানুই হাই স্কুলের স্বাস্থ্য শিক্ষার ক্লাসে ১৫ বছরের ছাত্রছাত্রীদের মধ্যে এই পুস্তিকা বিলি করা হয়। এরপর এক ছাত্রের মা এ নিয়ে অভিযোগ করেন। এ নিয়ে অনলাইনেও ব্যাপক বিতর্ক সৃষ্টি হয়। স্কুলটির প্রধান শিক্ষক জেফ স্মিথ অবশ্য বলছেন, ছাত্রদের কাছে একটি উগ্র মতাদর্শকে তুলে ধরার জন্যেই বইটি বিলি করা হয়েছে। যদিও এতে স্কুলের নিজস্ব আদর্শের কোন প্রতিফলন ঘটেনি বলে মন্তব্য জেফ স্মিথের।

দেখা যাক, বিতর্ক শেষ পর্যন্ত কোন দিকে মোড় নেয়।