• সোমবার, ২৮ মে ২০১৮, ১৪ জ্যৈষ্ঠ ১৪২৫
  • ||

তারা তিনজন প্রশংসার জোয়ারে ভাসছেন!

প্রকাশ:  ০১ জানুয়ারি ২০১৮, ১৬:০১
বিনোদন ডেস্ক
ছবি : সংগৃহীত
প্রিন্ট

সময়টা দারুণ উপভোগ করছেন গহীন বালুচরের তিন নতুন মুখ নীলাঞ্জনা নীলা, তানভীর ও মুন।
সম্প্রতি (২৯ ডিসেম্বর) মুক্তি পেয়েছে তাদের অভিনীত ছবি ‘গহীন বালুচর’।  সিনেমাটিতে কাজের জন্য গুণীদের কাছ থেকে বেশ প্রশংসা পেয়েছেন এই তিন অভিনয়শিল্পী।  চিত্রপরিচালক বদরুল আনাম সৌদ পরিচালিত এ ছবিটি উপভোগ করেছেন দেশের টিভি ও চলচ্চিত্রের কয়েকজন বিশিষ্ট অভিনয়শিল্পী ও নির্মাতা।  নিজেদের অভিনয় দক্ষতা দিয়ে তাদের মুগ্ধ করেছেন এই তিন তরুণ।  পাশাপাশি ছবির কাহিনী, গান, চিত্রনাট্য ও নির্মাণশৈলীর প্রশংসা করেছেন অনেকে।  এর ফলে গহীন বালুচরের প্রতি দর্শকদের আগ্রহ বাড়ছে।

গুণী অভিনেত্রী ও নাট্যকার বিপাশা হায়াত বলেন, ‘নতুনরা খুব ভালো করেছে।  তবে তাদের মনে রাখতে হবে সামনের সময়টা চ্যালেঞ্জের।  আরো অধ্যবসায়ী হয়ে এগিয়ে যেতে হবে।’

অভিনেতা ও পরিচালক তৌকীর আহমেদ বলেন, ‘নীলা, মুন ও তানভীর- নতুন তিনজনই খুব ভালো অভিনয় করেছে।’

এই ছবির অভিনেত্রী ও নির্বাহী প্রযোজক সুবর্ণা মুস্তাফা বলেন, ‘নীলা, মুন, তানভীর-তিনজনই মেধাবী শিল্পী।  ইন্ডাস্ট্রি চাইলেই তাদের কাজে লাগাতে পারে।’

অভিনেতা রাইসুল ইসলাম আসাদ বলেন, ‘ছোট ছোট বাচ্চা তিনটি ছেলে মেয়ে কী যে অসাধারণ অভিনয় করেছে! সত্যিই মুগ্ধ হয়ে গেলাম।’

গুণী নাট্যনির্মাতা চয়নিকা চৌধুরী বলেন, ‘নীলা, তানভীর এবং মুন নতুন হলেও পাকা অভিনয়শিল্পীর মতোই অভিনয় করেছে। আমার মনে হয়, তাদের ক্ষেত্রে অন্যকোনো তিনজন সুপারস্টার আসলেও এরচেয়ে বেশি ভালো অভিনয় করতে পারতো না।’

অভিনেতা লুৎফর রহমান জর্জ বলেন, ‘আমি বিস্মিত হয়ে গেলাম নীলা, তানভীর ও মুনের অভিনয় দেখে।  কারণ তারা নতুন, তাই চলচ্চিত্রে তারা কতোটা ভালো করতে পারবে- তা নিয়ে আমার নিজের মধ্যেই দ্বিধা ছিলো।  কিন্তু সৌদ এমনই একজন নির্মাতা, ঠিকই তাদের কাছ থেকে অভিনয় বের করে আনতে পেরেছেন।’

উল্লেখ্য ‘গহীন বালুচর’ নীলা, তানভীর ও মুনের প্রথম চলচ্চিত্র।  তারা দর্শকদের ছবিটি প্রেক্ষাগৃহে গিয়ে উপভোগ করার অনুরোধ করেছেন।  কারণ এটি এদেশের মাটির গল্পের চলচ্চিত্র, একটি মিষ্টি প্রেমের চলচ্চিত্র।

/এটিএম ইমু