• শুক্রবার, ১৫ ডিসেম্বর ২০১৭, -৩ পৌষ ১৪২৪
  • ||
  • আর্কাইভ

ওজন কমাবে এই জুস

প্রকাশ:  ০৭ ডিসেম্বর ২০১৭, ১২:৫৮
পূর্বপশ্চিম ডেস্ক
ছবি: ইন্টারনেট থেকে
প্রিন্ট

সারা পৃথিবীতেই অতিরিক্ত ওজন একটি বড় সমস্যা হয়ে দাঁড়িয়েছে। ডায়াবেটিস, হাইপার টেনশনসহ নানা রোগের কারন অতিরিক্ত ওজন। যারা অতিরিক্ত ওজন সমস্যায় ভুগছে তারা অনেকেই কঠিন ব্যায়াম এবং খাদ্যাভ্যাস মেনে চলে। অনেকে আবার লাইপোসেকশনের মতো অপারেশন করে শরীর থেকে অতিরিক্ত চর্বি কেটে ফেলে।

ব্যায়াম, খ্যাদ্যাভ্যাস মেনে চলা কিংবা অপারেশন করানো বেশ জটিল প্রক্রিয়া যেটি অনেকেই এড়িয়ে যেতে চাইবে। ব্যস্ত জীবনে সব প্রক্রিয়া মেনে চলা সম্ভবও হয়না সবার জন্য।

ওজন কমানোকে যতটা জটিল ভাবি আমরা ঠিক ততটা জটিল আসলে নয়। অতিরিক্ত ওজন নিয়ে যারা চিন্তিত তারা একটি ঘরোয়া পদ্ধতিতে বানানো পানীয় বেছে নিতে পারেন ওজন কমানোর জন্য, যার কোন পার্শ্বপ্রতিক্রিয়াও নাই।

ওজন কমানোর পানীয়:
প্রতিদিন ঘুম থেকে উঠে এই পানীয় পান করলে পেটে জমা চর্বি যা সহজে ঝরতে চায়না সেটা থেকে মুক্তি পাওয়া সম্ভব। এটা যে শুধু খেতেই ভালো তাই নয়, বানানোও খুব সহজ।

উপকরণ:
শসা ১ টুকরো
আনারস ৩ টুকরো
সেলেরি পাতা এক আঁটি
পার্সলে পাতা এক গ্লাস

কীভাবে তৈরি করবেন:
প্রথমেই সমস্ত সব্জি আর ফলগুলো ভালো করে ঠান্ডা পানি দিয়ে ধুয়ে নিতে হবে। তারপর, চাক চাক করে শসা কেটে নিতে হবে। সেলেরি আর পার্সলে পাতা কুঁচিয়ে নিতে হবে। তারপর সমস্ত উপকরণ ব্লেন্ডারে ব্লেন্ড করে নিলেই তৈরি সুস্বাদু ওজন হ্রাসের পানীয়।

কখন খাবেন:
কোন প্রকার মিষ্টি করার উপাদান বা চিনি যোগ না করেই সকালে খালি পেটে এই পানীয় পান করতে হবে। পানীয়টির খাদ্যগুন যাতে নষ্ট না হয় তাই তৈরি করার ১৫ মিনিটের মাঝেই এটি পান করে ফেলা ভালো। ভিটামিনে ভরপুর এই চমৎকার পানীয়টি  সাতদিন পান করলে  শুধু তলপেটের চর্বি দূর হবে তাইই নয়, বরং  যিনি পান করবেন তিনি আরো বেশি স্বাস্থ্যবান আর চনমনে বোধ করবেন। একই সাথে স্বাস্থ্যসম্মত খাওয়া দাওয়ার অভ্যাস করতে হবে। প্রচুর পরিমাণে ফল, সব্জি আর আঁশসমৃদ্ধ খাবার বেছে নিতে হবে আর সেইসাথে মিষ্টিজাতীয় খাবার আর চিনি বাদ দিতে হবে।

মনে রাখা ভালো যে মাসের পর মাস এই পানীয় পান করার প্রয়োজন নাই। এছাড়া কারো শরীরে যদি কোন ধরনের নেতিবাচক প্রভাব পড়ে তাহলে এই পানীয় পান বন্ধ করে দিতে হবে।

close