• শুক্রবার, ১৬ নভেম্বর ২০১৮, ২ অগ্রহায়ণ ১৪২৫
  • ||

বি. চৌধুরীর জোটে যোগ দিচ্ছে ন্যাপ-এনডিপি!

প্রকাশ:  ১৮ অক্টোবর ২০১৮, ২০:৪৯ | আপডেট : ১৮ অক্টোবর ২০১৮, ২০:৫৮
নিজস্ব প্রতিবেদক
প্রিন্ট

সাবেক রাষ্ট্রপতি ও বিকল্পধারার সভাপতি ডা. একিউএম বদরুদ্দোজা চৌধুরীর সঙ্গে দেখা করেছেন বিএনপির নেতৃত্বাধীন ২০ দলীয় জোট ছেড়ে বেরিয়ে আসা ন্যাপ চেয়ারম্যান জেবেল রহমান গানি এবং এনডিপির চেয়ারম্যান খন্দকার গোলাম মোর্ত্তজা।

বৃহস্পতিবার (১৮ অক্টোবর) বিকেল সাড়ে ৪টার দিকে বারিধায় বি. চৌধুরীর বাসায় যান সদ্য জোটত্যাগী এই দুই নেতা। সেখানে প্রায় দুই ঘণ্টা রুদ্ধদ্বার বৈঠক করেন তারা।

বৈঠক শেষে সাংবাদিকদের ব্রিফ করেন বিকল্পধারার যুগ্ম মহাসচিব মাহী বি চৌধুরী।

তিনি জানান, আগামী রোববার যুক্তফ্রন্ট সম্প্রসারণ করতে বৈঠক হবে। এরই মধ্যে কয়েকটি রাজনৈতিক দল আগ্রহ প্রকাশ করেছেন। প্রথমে আলোচনা হবে ন্যাপ ও এনডিপির সঙ্গে।

ন্যাপের চেয়ারম্যান জেবেল রহমান গাণি সাংবাদিকদের বলেন, ‘বৈঠকে নতুন জোট গঠন বা যুক্তফ্রন্টে যোগ দেয়ার বিষয়ে কোনো আলোচনা হয়নি। এটা ছিল স্রেফ সৌজন্য সাক্ষাৎ। উনি (বি. চৌধুরী) দেশের প্রবীণ রাজনীতিক, সর্বজন শ্রদ্ধেয় ব্যক্তি। দেখা করে দোয়া নিতে এসেছিলাম। সেটি সফলভাবে হয়েছে।’

তিনি বলেন, ‘গত ২২ সেপ্টেম্বর জাতীয় ঐক্য প্রক্রিয়ার নাগরিক সমাবেশে আমাদের ডাকা হয়েছিল। কিন্তু, বিএনপি জোটে থেকে আরেকটি জোটে যুক্ত হওয়ার বিষয় ভাল লাগেনি বলে আমরা সেখানে যাইনি।’

নতুন জোটে যোগদান প্রসঙ্গে ন্যাপ চেয়ারম্যান বলেন, ‘আমরা একই ঘরানার রাজনীতি থেকে যেহেতু এসেছি। অনেক জায়গাতেই আমাদের মনের মিল রয়েছে। গণতান্ত্রিক পদ্ধতি চর্চার মাধ্যমে ঐক্য গড়ার প্রস্তাব করেন মাহী বি চৌধুরী। আমরা রাজি হয়েছি এ আলোচনায় অংশ নিতে। আগামী দিনে হয়তোবা একসঙ্গে আমরা পথও চলতে পারি।’

এনডিপির চেয়ারম্যান খোন্দকার গোলাম মুর্তজা বলেন, তাঁরা জাতীয়তাবাদী শক্তির সঙ্গে আলোচনা করতে যাচ্ছেন। জাতীয়তাবাদী রাজনৈতিক শক্তির সঙ্গে একটি আলোচনার প্রক্রিয়া আজকের এই সৌজন্য সাক্ষাৎ।

বৈঠকে উপস্থিত ছিলেন বিকল্পধারার সভাপতি ডা. একিউএম বদরুদ্দোজা চৌধুরী, যুগ্ম-মহাসচিব মাহী বি. চৌধুরী, ন্যাপ মহাসচিব এম গোলাম মোস্তফা ভূইয়া, প্রেসিডিয়াম সদস্য মনির এনায়েত মল্লিক, ব্যারিস্টার মশিউর রহমান গানি, ভাইস-চেয়ারম্যান বাবু স্বপন কুমার সাহা, যুগ্ম-মহাসচিব মো. নুরুল আমান চৌধুরী, ঢাকা মহানগর ন্যাপের সভাপতি মো. শহীদুননবী ডাবলু, সাধারণ সম্পাদক অধ্যক্ষ নজরুল ইসলাম, এনডিপির মহাসচিব মঞ্জুর হোসেন ঈসা প্রমুখ।

প্রসঙ্গত, গত ১৬ অক্টোবর সংবাদ সম্মেলন করে বিএনপি নেতৃত্বাধীন ২০ দলীয় জোট থেকে বেরিয়ে যায় ন্যাপ ও এনডিপি। অবশ্য পরের দিন সংবাদ সম্মেলন করে তাদের দলের অন্য অংশ ২০ দলীয় জোটে থাকার ঘোষণা দেয়।

এর আগে গত ১৩ অক্টোবর বিএনপি, গণফোরাম, জেএসডি ও নাগরিক ঐক্য মিলে ‘জাতীয় ঐক্যফ্রন্ট’ নামে নতুন জোট গঠিত হয়। এই জোটে বি. চৌধুরীর থাকার কথা থাকলেও শেষ মুহূর্তে তাকে বাদ দেয়া হয়।

/আরাফাত

যুক্তফ্রন্ট,এ কিউ এম বদরুদ্দোজা চৌধুরী,ন্যাপ,এনডিপি
apps