Most important heading here

Less important heading here

Some additional information here

Emphasized text
  • শনিবার, ১৯ জানুয়ারি ২০১৯, ৬ মাঘ ১৪২৫
  • ||

শিক্ষা প্রতিষ্ঠান ও কর্মক্ষেত্রে যৌন হয়রানি একটি ভয়াবহ ব্যাধি’

প্রকাশ:  ০৩ এপ্রিল ২০১৮, ১৮:৩৭ | আপডেট : ০৪ এপ্রিল ২০১৮, ০২:১৩
নিজস্ব প্রতিবেদক
প্রিন্ট icon

‘শিক্ষা প্রতিষ্ঠান ও কর্মক্ষেত্রে যৌন হয়রানি একটি নিত্য দিনের ঘটনা হয়ে দাঁড়িয়েছে। সাম্প্রতিক সময়ে এটি একটি ভয়াবহ ব্যাধিতে রুপ নিয়েছে।’

মঙ্গলবার ডেইলি স্টার ভবনে ফেয়ার ওয়ার ফাউন্ডেশন আয়োজিত ‘শিক্ষা প্রতিষ্ঠান ও কর্মক্ষেত্রে যৌন হয়রানি প্রতিরোধের ওপর প্রবন্ধ এবং খসড়া আইন ২০১৮’ শীর্ষক গোলটেবিল বৈঠকে বক্তারা এসব কথা বলেন।

এসময় জেন্ডার প্লাটফর্মের পক্ষ থেকে শিক্ষা প্রতিষ্ঠান ও কর্মক্ষেত্রে যৌন হয়রানি প্রতিরোধ ও সুরক্ষা অাইনের একটি প্রস্তবিত খসড়া তুলে ধরা হয়। এই অাইন শিক্ষা প্রতিষ্ঠান এবং কর্মক্ষেত্রে যৌন হয়রানী প্রতিরোধ ও সুরক্ষা অাইন- ২০১৮ নামে অভিহিত হবে।

প্রস্তাবিত এই অাইনে বলা হয়েছে, বাংলাদেশের সীমানার মধ্যে সরকারি, বেসরকারি, অধাসরকারি, স্বায়ত্বশাসিত, প্রাতিষ্ঠানিক, অপ্রাতিষ্ঠানিক, ব্যক্তি মালিকানাধীন ও নিয়ন্ত্রণাধীনসহ সকল শিক্ষা প্রতিষ্ঠান এবং কর্মক্ষেত্রের জন্য প্রযোজ্য হবে।

ওয়ার্কাস গ্রুপ অব অাইএলও’র সভাপতি ক্যাটলিনা প্যাসচিয়ার সেমিনারে সকলের প্রতি প্রশ্ন রেখে বলেন, অাপনাদের জন্য শিক্ষা প্রতিষ্ঠান এবং কর্মক্ষেত্রে যৌন হয়রানী প্রতিরোধ ও সুরক্ষা অাইনটি দরকার কি না?

তিনি বলেন, যেতেহু অাপনারা এই অাইটটি চান তাহলে এটা বাস্তবায়ন করার দায়িত্ব অামাদের সবার।

ফেয়ার ওয়ার ফাউন্ডেশনের নির্বাহী পরিচালক অালেকজেন্ডার কনস্টাম বলেন, অামরা চাই বাংলাদেশের সকল কর্মক্ষেত্রে যৌন হয়রানির ঘটনাগুলো বন্ধ হোক। অামরা ইতিমধ্যে কিছুটা সফলতা পেয়েছি। কিন্তু অামরা অারো বড় সফলতান চাই। কারণ বাংলাদেশের বিভিন্ন জায়গা থেকে অামরা যৌন হয়রানির ঘটনা গুলো শুনতে পায়।

তিনি বলেন, এই যৌন হয়রানি বন্ধ করতে একটি অাইনের প্রয়োজন। অামরা এই অাইন সম্পর্কে শ্রমিক, মালিকপক্ষ, অাইনজীবী, সাংবাদিকসহ সকলের মতামত অত্যন্ত জরুরি। ভলো ব্যবসার জন্য কর্মক্ষেত্রে কর্মপরিবেশের উন্নয়ন খুব জরুরি। অার কর্মপরিবেশের জন্য এই অাইনটি অত্যন্ত কার্যকরী। অাইন হলে অামাদের সবার জন্য এটি খুব কার্যকরী হবে।

তিনি অারো বলেন, অাপনারা জানেন গার্মেন্টস শিল্প বাংলাদেশের জন্য অনেক গুরুত্বপূর্ণ। এটি বৈদেশিক মূদ্রা অর্জন করার একটি ভালো মাধ্যম। বৈদেশিক মূদ্রা অর্জনের জন্য কর্মক্ষেত্রের একটি ভালো পরিবেশের প্রয়োজন।

এসময় বক্তারা বলেন, দীর্ঘদিন ধরে অামরা যৌন হয়রানির বিরুদ্ধে লড়াই করে যাচ্ছি। অামরা যে অান্দোলন করে যাচ্ছি তার কিছুটা হলেও অামরা সফল হয়েছি। অামরা হাইকোর্টের রায়ের অালোকে একটি অাইনের খসড়া তৈরি করেছি। যদিও অাইন দিয়ে সব কিছু সমাধান হবে না। তবে একটি খুব প্রয়োজন। কারণ বিশ্বের সব দেশেই যৌন হয়রানি প্রতিরোধে অাইন রয়েছে।

বক্তারা অারো বলেন, যৌন হয়রানির বিষয় অামাদের সচেতন হতে হবে। কারণ বর্তমানে হয়রানির ধরণ বদলে গেছে। এই অাইনটা যাতে পাস হয় সেজন্য সবাইকে সোচ্চার হতে হবে।

এসময় অারো উপস্থিত ছিলেন, ফেয়ার ওয়ার ফাউন্ডেশনের কান্ট্রি ম্যানেজার কুন উস্টেরম, ফেয়ার ওয়ার ফাউন্ডেশনের কান্ট্রি রিপ্রেজেন্ট্রিটিব বাবলু রহমান প্রমুখ।

apps