• রবিবার, ২৭ মে ২০১৮, ১৩ জ্যৈষ্ঠ ১৪২৫
  • ||

প্রায়শ্চিত্ত করছেন বাবরি মসজিদ ভাঙা বলবীর সিং

প্রকাশ:  ০২ জানুয়ারি ২০১৮, ১২:৫২
আন্তর্জাতিক ডেস্ক
প্রিন্ট

সাম্প্রদায়িক দাঙ্গা ইস্যুতে ভারতের অযোধ্যায় ঐতিহাসিক বাবরি মসজিদ ভাঙতে সাহায্যকারী বলবীর সিং এখন প্রায়শ্চিত্ত করছেন। নিজের নাম পরিবর্তন করে মোহাম্মদ আমির নামের বলবীর এখন ১০০ মসজিদ পূণনির্মাণ করে করতে চান প্রায়শ্চিত্ত। মুম্বাই মিরর।

আজ থেকে ২৫ বছর আগে বাবরি মসজিদ ভাঙায় সহায্য করেছিলেন ইতিহাস, রাষ্ট্রবিজ্ঞান ও ইংরেজি বিষয়ে তিনবার স্নাতকোত্তর বলবীর। জীবনের নানা ঘটনার মধ্য দিয়ে শিবসেনার সক্রিয় কর্মী বলবীর সিং এখন কোনো সহিংসতার মধ্যে নেই।

মুম্বাই মিররের মতে, বাবরি মসজিদের ওই ঘটনার পর বলবীরের জীবনে দুর্যোগ নেমে আসে। বাড়ি থেকে বাবা বের করে দেয়া থেকে শুরু করে স্ত্রী ত্যাগের মতো ঘটনাও ঘটে। নিজের কৃতকর্মের জন্যই এমনটা ঘটেছে এই ভাবনা এবং বাবার মৃত্যুমুখে বলে যাওয়া কথা বলবীরের জীবনে নাটকীয় পরিবর্তন এনে দেয়।

নিজের প্রসঙ্গে বলবীর বলেন, বাবরি মসজিদ ভেঙে পানিপথে ফিরে যাওয়ার পর সেখানে তাকে ও যোগেন্দ্রকে তুমুল সংবর্ধনা জানানো হয়। কিন্তু বাড়িতে ঢুকতেই হুঙ্কার দিয়ে ওঠেন বলবীরের বাবা দৌলতরাম। আমাকে বললেন, হয় তুমি এই বাড়িতে থাকবে, না হলে আমি।  বেশ কিছু দিন পর বাড়িতে ফিরে জানতে পারেন, বাবা মারা গিয়েছেন। তিনি বাবরি মসজিদ ভাঙায় যে দুঃখ পেয়েছিলেন বাবা, তাতে তার মৃত্যু হয়েছে। 

১৯৯৩ থেকে ২০১৭, এই ২৪ বছর ধরে উত্তর ভারতের বিভিন্ন জায়গায়, বিশেষ করে মেওয়াটে বেশ কিছু ভেঙে পড়া মসজিদ খুঁজে বের করে সেগুলির মেরামত করেছেন তিনি। উত্তরপ্রদেশের হাথরাসের কাছে মেন্ডুর মসজিদও নাকি সারিয়েছেন বলবীরই।

কেকে