• শুক্রবার, ২০ জুলাই ২০১৮, ৫ শ্রাবণ ১৪২৫
  • ||

প্রথমার্ধে ১-০ গোলে এগিয়ে ইংল্যান্ড

প্রকাশ:  ১২ জুলাই ২০১৮, ০০:৫১ | আপডেট : ১২ জুলাই ২০১৮, ০২:৩৯
স্পোর্টস ডেস্ক
প্রিন্ট

ক্রোয়েশিয়ার বিপক্ষে ১-০ গোলে এগিয়ে থেকে বিরতিতে গেল ইংল্যান্ড। ম্যাচ শুরু হতে না হতেই এগিয়ে যায় ইংল্যান্ড। ম্যাচের পঞ্চম মিনিটে ফ্রি কিক থেকে গোলটি করেছেন কাইরান ট্রিপিয়ার। চতুর্থ মিনিটে ডি-বক্সের একেবারেই সামনে ডেলে আলিকে ফাউল করেন লুকা মদ্রিচ। ফ্রি-কিকের সিদ্ধান্ত দেন রেফারি। ফ্রি-কিকের সুযোগ কাজে লাগিয়ে দলকে এগিয়ে দেন ট্রিপিয়ার। আন্তর্জাতিক ফুটবলে ট্রিপিয়ারের এটি প্রথম গোল। মস্কোর লুঝনিকি স্টেডিয়ামে ম্যাচটি শুরু হয়েছে বাংলাদেশ সময় রাত বারোটায়। এই প্রতিবেদন লেখা পর্যন্ত ম্যাচে ১-০ গোলে এগিয়ে রয়েছে ইংল্যান্ড।

প্রথম সেমিফাইনালে বেলজিয়ামকে ১-০ গোলে হারিয়ে রাশিয়া বিশ্বকাপের ফাইনালে পা রেখেছে ফ্রান্স। দ্বিতীয় দল হিসেবে কে হবে ফ্রান্সের প্রতিপক্ষ তা নির্ভর করছে আজকের ম্যাচের উপর। আজ দ্বিতীয় সেমিফাইনালে ক্রোয়েশিয়া-ইংল্যান্ড মুখোমুখি হতে মাঠে নেমেছে। দুই দলের কাছেই এর তাৎপর্য সমান। কেননা দীর্ঘ অপেক্ষার পরে আজ স্বপ্ন জয়ের পথে সামনা-সামনি দুই দল। প্রত্যাশা একটাই খালি হাতে না ফিরে যাওয়া। মস্কোর লুজনিকি স্টেডিয়ামে ম্যাচটি শুরু হয়েছে বাংলাদেশ সময় রাত বারোটায়।

বুধবার বিশ্বকাপের দ্বিতীয় সেমিফাইনালে মস্কোয় মুখোমুখি ইংল্যান্ড-ক্রোয়েশিয়া। আবারও দুই ইউরোপীয় শক্তির লড়াই। একদিনে ৫২ বছর পর বিশ্বকাপ জয়ের স্বপ্ন দেখছে 'থ্রি লায়ন্স'রা। ২০ বছর আগে বিশ্বকাপে আবির্ভাবেই সেমিফাইনালে খেলেছিল ক্রোটরা। সেবার হয়নি, তাই এবার বিশ্বজয়ের স্বপ্ন দেখছেন ক্রোটরা।

একদিকে হ্যারি কেনের আলোয় বিশ্বকাপে উদ্ভাসিত ব্রিটিশরা। সঙ্গে ডেলে আলি, রহিম স্ট্রালিং, অ্যাশলে ইয়ং,জেসে লিংগার্ড তো রয়েছেনই। অন্যদিকে সোনার সময়ের মধ্যে দিয়ে যাচ্ছে ক্রোয়েশিয়া। আর তার প্রধান দুই চালিকাশক্তির নাম লুকা মডরিচ ও ইভান রাকিটিচ। তবে ক্রোয়েশিয়া কিংবা ইংল্যান্ড কোনও দলই ব্যাক্তিগত নৈপুন্যের ওপর নির্ভরশীল নয়। টিম গেমেই ভরসা রাখছে ক্রোটদের পাশাপাশি ব্রিটিশরাও।

পায়ে ব্যথা থাকা সত্ত্বেও প্রথমবার বিশ্বকাপের ফাইনালে ওঠার স্বপ্ন পূরণ করতে ইংল্যান্ডের বিরুদ্ধে মাঠে নামতে মরিয়া ক্রোয়েশিয়ার গোলরক্ষক দানিয়েল সুবাসিচ। '৯০ সালের পর বিশ্বকাপের সেমি ফাইনালে ওঠা ইংল্যান্ডকে হারানো কঠিন হবে বলে মনে করেন সুভাসিচ। তাঁর মতে, "ইংল্যান্ডের দারুণ সব ফুটবলার আছে- ওরা দারুন দল। ওদের অনেক উঠতি ফুটবলার রযেছে।আমাদের জন্য আরও একটা কঠিন ম্যাচ হবে, কঠিন এক চ্যালেঞ্জ।"

ক্রোয়েশিয়ার বিরুদ্ধে কৌশল বদলাবেন না বলে জানিয়ে দিয়েছেন ইংল্যান্ডের কোচ গ্যারেথ সাউথগেট। ক্রোয়েশিয়ার বিরুদ্ধে মাঠে নামার আগে সতর্ক সাউথগেট বলেন, "অবশ্যই ওদের শক্তিশালী মিডফিল্ড আছে। তাদেরকে খেলার জায়গা না দেওয়াটাই হবে ফুটবলারদের কাজ। কেননা ওরা (ক্রোয়েশিয়া) খুবই উঁচু মানের প্রতিপক্ষ। আমাদের সচেতন থাকতে হবে।"

দুই দলের একাদশ-

ক্রোয়েশিয়া (৪-২-৩-১) : দানিজেল সুবাসিচ (গোলরক্ষক), সিমে ভ্রাসালজকো, দেজান লোভরেন, দোমাগোজ ভিদা, ইভান স্ট্রাইনিচ, ইভান রাকিটিচ, মার্সেলো ব্রোজোভিচ, আন্তে রেবিচ, লুকা মড্রিচ, ইভান পেরিসিক, মারিও মানজুকিচ।

ইংল্যান্ড (৩-৫-২): জর্ডান পিকফোর্ড (গোলরক্ষক), কাইল ওয়াকার, জন স্টোনস, হ্যারি ম্যাগুইরে, কেইরান ট্রিপার, ডেলে আলি, জর্দান হেন্ডারসন, জেসে লিনগার্ড, অ্যাশলে ইয়াং, রাহিম স্টার্লিং, হ্যারি কেইন।

/এস কে