• বৃহস্পতিবার, ২৬ এপ্রিল ২০১৮, ১৩ বৈশাখ ১৪২৫
  • ||
  • আর্কাইভ

যৌতুকের দাবিতে স্ত্রীকে নির্যাতন, এসআই গ্রেপ্তার

প্রকাশ:  ১২ জানুয়ারি ২০১৮, ১৪:৩৯
জাহিদ হাসান, সাভার
প্রিন্ট

সাভারে যৌতুকের দাবি স্ত্রীকে শারীরিক নির্যাতন ও হত্যার চেষ্টার মামলায় বদরুদ্দোজ্জা মাহামুদ নামে পুলিশের এক এসআইকে গ্রেপ্তার করা হয়েছে।

শুক্রবার সকালে সাভারের তালবাগ এলাকায় বদরুদ্দোজার ভাড়া বাড়ি থেকে তাকে গ্রেপ্তার করা হয়।

গ্রেপ্তার বদরুদ্দোজার গ্রামের বাড়ি লক্ষীপুর জেলার চাটখালী গ্রামে। তিনি সম্প্রতি চট্রগ্রাম মেন্ট্রোপলিনে যোগদান করেন। এর আগে সাভারে ডিবি পুলিশে কর্মরত ছিলেন ও নানা অভিযোগে তাকে ডিবি থেকে ৫ মাস আগে প্রত্যাহার করা হয়েছিল। গত ২০১৩ সালে তাদের পারিবারিকভাবে এই দম্পতির বিয়ে হয়েছিল।

নির্যাতিত রাজিয়া সুলতানা নিলা জানান, তার স্বামী নিয়মিত ইয়াবা বড়িসহ নানা ধরণের মাদক সেবন করেন। তার কয়েকজন সহযোগী রয়েছে। এই সহযোগীদের মাধ্যমে বদরুদ্দোজা মাদকের ব্যবসাও করেন। নির্বিঘ্নে এসব কাজ করার জন্য বদরুদ্দোজা সাভারে আলাদা একটি ফ্ল্যাটও ভাড়া নিয়েছেন। যৌতুকের দাবিতে ও এসব কাজে বাধা দিলেই রাজিয়াকে নির্যাতন করতেন তিনি। এর ধারাবাহিকতায় মঙ্গলবার দুপুরে বদরুদ্দোজা তাকে পিটিয়ে ও বুট দিয়ে লাথি মেরে গুরুতর আহত করেন। পরে ফ্ল্যাটে রাজিয়াকে আটকে রেখে তিনি চলে যান। রাতে বদরুদ্দোজা বাসায় ফেরেন। এরপর গত বুধবার সকালে রাজিয়া কৌশলে বাসা থেকে বের হয়ে সাভার মডেল থানায় যান। পরে পুলিশের সহায়তায় তিনি সাভার উপজেলা স্বাস্থ্য কমপ্লেক্সে ভর্তি হন। তাদের কোনো সন্তান নেই।

নির্যাতিত রাজিয়া সুলতানার বরাত দিয়ে সাভার মডেল থানার ওসি (অপরেশন) আবুল বাশার জানান, গত বুধবার যৌতুকের দাবিতে তার স্ত্রী রাজিয়া সুলতানা নিলাকে পিটিয়ে গুরুতর জখম করেন এসআই বদরুদ্দোজা। পরে উদ্ধার করে সাভার স্বাস্থ্য কম্পপ্লেক্সে ভর্তি করা হয়। আজ সকালে স্ত্রী বাদী হয়ে তার বিরুদ্ধে মামলা দায়ের করেন। তার আলোকে বদরুদ্দোজাকে গ্রেপ্তার করে আদালতে পাঠানো হয়েছে।