Most important heading here

Less important heading here

Some additional information here

Emphasized text
  • বুধবার, ২০ মার্চ ২০১৯, ৬ চৈত্র ১৪২৫
  • ||

মালয়েশিয়া প্রবাসীর কিডনি বিকল, দেশে ফেরার আকুতি

প্রকাশ:  ১৬ মার্চ ২০১৯, ১২:৩৪
আহমাদুল কবির, মালয়েশিয়া
প্রিন্ট icon

পরিবারের সুখের আশায় স্বপ্নের দেশ মালয়শিয়ায় পাড়ি জমান দরিদ্র পরিবারের সন্তান ইরফান ইসলাম অভি (২২) কিন্তু নিয়তি বাম। কিডনি রোগে আক্রান্ত হয়ে মালয়েশিয়া একটি হাসপাতালের বেডে থেকে দিন গুনছেন কবে দেশে ফিরবেন। ঢাকা মোহাম্মদপুরের বাসিন্দা মৃত মোঃ হাশেম মিয়ার ছেলে ইরফান ইসলাম অভি।

তার শারীরিক অবস্থা দিন দিন খারাপের দিকে যাওয়ায় ডাক্তাররা তাকে পরামর্শ দিয়েছেন উন্নত চিকিৎসা নিতে। কিন্তু মালয়েশিয়ায় কিডনি চিকিৎসা ব্যয়বহুল হওয়ায় তার পক্ষে ব্যয়ভার গ্রহণ করা সম্ভব নয়। ইতিমধ্যে তার চিকিৎসায় তার সঞ্চিত অর্থ খরচ হয়ে গেছে। তবে তার স্বজনরা জানিয়েছেন বাংলাদেশে মালয়েশিয়ার চেয়ে স্বল্প খরচে এই চিকিৎসা সম্ভব। কিন্তু তার কাছে পাসপোর্ট ভিসা না থাকায় দ্রুত দেশে ফিরতে পারছেনা। স্পেশাল পাস এবং তার হাসপাতালের বিল বাবদ প্রচুর টাকার দরকার। দূতাবাস থেকে ট্রাভেল পাস প্রক্রিয়া সম্পন্ন করে ইমিগ্রেশনে জমা দেয়া হয়েছে। আগামী ১৮ ই মার্চ সোমবারে টাকা জমা দেওয়ার শেষ সময় বেঁধে দিয়েছে মালয়েশিয়ার ইমিগ্রেশন বিভাগ।

এ বিষয়ে দূতাবাসের শ্রম শাখার প্রথম সচিব মো: হেদায়েদুল ইসলাম মন্ডল এ প্রতিবেদককে জানান, যত দ্রুত সম্ভব অভিকে দেশে পাঠানোর ব্যবস্হা করা হচ্ছে।

ইরফান ইসলাম অভি ২০১৭ সালে মালয়েশিয়ায় গমন করেন এবং গত দুই বছর ধরে মালয়েশিয়ার ক্যাপং এলাকায় একটি রেস্ট্রুরেন্টে কাজ করতেন। হঠাৎ অসুস্থ হয়ে হাসপাতালে ভর্তি হলে মেডিকেল চেক আপ করার পর রিপোর্ট আসে তার কিডনিতে মারাত্মক সমস্যা যা কাজ করছে না অনবরত প্রস্রাব ঝরছে। এর চিকিৎসা করতে অনেক টাকার প্রয়োজন যার ব্যয়ভার বহন করতে তার পক্ষে সম্ভব নয়।

এমতাবস্থায় তার দেশে ফেরা ছাড়া আর কোনো উপায় নেই। কিন্তু বৈধতা না থাকায় তার দেশে ফেরা বিলম্ব হচ্ছে। এ দিকে দূতাবাস কর্তৃক মালয়েশিয়া ইমিগ্রেশনে তার মেডিকেল রিপোর্ট জমা দেওয়ার পর তাকে দেশে ফেরার স্পেশাল পাসের টাকা জমা দেওয়ার একটি নির্দিষ্ট সময় বেধেঁ দিয়েছে। যার শেষ তারিখ ১৮/৩/২০১৯ ইং সোমবার। এই সময়ের মধ্যে টাকা জমা না দিলে তার স্পেশাল পাস (বহির্গমণ পাস) ইস্যু হবে না।

অন্যদিকে দেশে ফেরার জন্য যে টাকা প্রয়োজন তা নেই প্রবাসী অভির। পিতৃহীন দুই ভাই এক বোন। পরিবারের মধ্যে অভি ছাড়া উপার্জনক্ষম ব্যক্তি আর কেউ নেই। অসুস্থ রেমিট্যান্স যোদ্ধার চিকিৎসা ও দেশে ফেরত যেতে ইরফান ইসলাম অভি দেশে বিদেশে সকল সামর্থ্যবান ব্যক্তিদের আর্থিক সহযোগিতা কামনা করেছেন।

যারা সহযোগিতা করতে চান নিম্ন ঠিকানায় যোগাযোগ করার জন্যে অনুরোধ জানিয়েছেন অভি।

যোগাযোগ: মোঃ ইরফান ইসলাম অভি। মোবাইল - +৬০১৪২১৮৩২২৮, কুয়ালালামপুর, মালয়েশিয়া।

মালয়েশিয়া
apps
  • সর্বশেষ
  • সর্বাধিক পঠিত