Most important heading here

Less important heading here

Some additional information here

Emphasized text
  • শনিবার, ২৩ ফেব্রুয়ারি ২০১৯, ১১ ফাল্গুন ১৪২৫
  • ||

কোটা আন্দোলনকারীদের প্রতি সহানুভূতির আহ্বান রওশনের

প্রকাশ:  ১২ জুলাই ২০১৮, ১৯:১৪ | আপডেট : ১২ জুলাই ২০১৮, ১৯:১৬
নিজস্ব প্রতিবেদক
প্রিন্ট icon

সংসদের বিরোধীদলীয় নেত্রী রওশন এরশাদ কোটা সংস্কারের দাবিতে আন্দোলনকারীদের সহানুভূতির দৃষ্টিতে দেখতে প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনার প্রতি আহ্বান জানিয়েছেন।

বৃহস্পতিবার (১২ জুলাই) সংসদের বাজেট অধিবেশনের সমাপনী বক্তব্যে এই আহ্বান জানান রওশন এরশাদ।

রওশন বলেন, শিক্ষার্থীরা কোটা নিয়ে আন্দোলন করছে। মনে রাখতে হবে এরা আমাদের সন্তান। তাই এই আব্দার করছে। তাদের চাকরি দিতে হবে।

তিনি বলেন, জানি প্রধানমন্ত্রী এ ব্যাপারে সচেতন আছেন। তিনি চেষ্টাও করছেন। তবুও আমি স্পিকারের মাধ্যমে প্রধানমন্ত্রীকে অনুরোধ করবো তিনি যেন সহানুভুতির দৃষ্টি নিয়ে এই বিষয়টি বিবেচনা করেন।

উল্লেখ্য, বর্তমানে সরকারি চাকরিতে ৫৬ শতাংশ পদ বিভিন্ন কোটার জন্য সংরক্ষিত। তবে আন্দোলনকারীরা এর সংস্কার দাবি করে কয়েক মাস ধরে আন্দোলন চালিয়ে আসছে। তাদের দাবি মোট পরিমাণ ১০ শতাংশ রাখতে হবে কোটার জন্য।

এদিকে আন্দোলনের এক পর্যায়ে প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনা গত ১১ এপ্রিল সংসদে বলেন, সরকারি চাকরিতে কোটা পদ্ধতিই আর রাখা হবে না। এরপর প্রধানমন্ত্রীর ‘ঘোষণা’ অনুযায়ী কোটা বাতিলের প্রজ্ঞাপনের দাবিতে শিক্ষার্থীরা আন্দোলনে নামার পর তাদের উপর হামলায় হয়, কয়েকজন নেতাকে গ্রেপ্তারও করে পুলিশ।

সংসদে রওশন এরশাদ তার বক্তব্যে যানজট নিয়েও কথা বলেন। তিনি বলেন, প্রধানমন্ত্রী এবং রাষ্ট্রপতি চলাচল করলে সেই রাস্তা বন্ধ করে দেয়া হয়। সাধারণ মানুষ ওই রাস্তায় যাতায়াত করতে পারে না। অনেক সময় সেই রাস্তা খুলে দিতে রাতও হয়ে যায়। এতে তৈরি হয় তীব্র যানজট। মানুষের ভোগান্তি বেড়ে যায় কয়েকগুণ। এ থেকে সাধারণ মানুষকে পরিত্রাণের উপায় খুঁজতে হবে সরকারকে।

প্রধানমন্ত্রীর উদ্দেশে তিনি আরও বলেন, আপনি জাতির পিতার কন্যা। আপনি জনগণের নেতা। আপনাকে বের হয়ে দেখতে হবে সবকিছু। আপনাকে রোধ করতে হবে এগুলো।

তিনি বলেন, আমার কথা হয়তো হেসে উড়িয়ে দেবেন প্রধানমন্ত্রী। কিন্তু এগুলো হেসে উড়িয়ে দেওয়ার কথা না। ডিজিটাল বাংলাদেশ গড়তে হল আপনাকেই এগুলো দেখতে হবে।

/আরকে

রওশন এরশাদ,কোটা সংস্কার,শেখ হাসিনা,সংসদ
apps
  • সর্বশেষ
  • সর্বাধিক পঠিত