Most important heading here

Less important heading here

Some additional information here

Emphasized text
  • বৃহস্পতিবার, ২১ ফেব্রুয়ারি ২০১৯, ৯ ফাল্গুন ১৪২৫
  • ||

ময়মনসিংহে লোকালয়ে ২টি বাঘ, এলাকায় আতঙ্ক

প্রকাশ:  ১০ জানুয়ারি ২০১৯, ২১:১৯
ময়মনসিংহ প্রতিনিধি
প্রিন্ট icon

ময়মনসিংহের ফুলপুর উপজেলার সাহাপুর গ্রামে বুধবার (০৯ জানুয়ারি) লোকালয়ে আসা ২টি বাঘের সন্ধান পাওয়া যায়। পুলিশ প্রশাসন ও স্থানীয় লোকজন বাঘ দুইটি ধরতে পারেনি। তাড়া খেয়ে গর্তে লুকিয়ে যায়।

বাঘ ধরা না পড়ায় আতঙ্কের মাঝে রয়েছে এলাকাবাসী। বাঘগুলোকে না মারতে এবং তাদের কোনও ক্ষতি না করার জন্য স্থানীয়দের আহ্বান জানিয়ে মাইকিং করছে উপজেলা প্রশাসন।

জানা যায়, ফুলপুর উপজেলার সাহাপুর গ্রামের রমেশ দত্তের বাড়ির পাশের জঙ্গল থেকে বুধবার সকাল সাড়ে ৬টার দিকে ২টি বাঘ বের হয়ে আসে এবং ৪টি কুকুরকে আক্রমণ করে। তখন কুকুরের শব্দ শুনে বাড়ির লোকজন বের হয়ে তা দেখতে পেয়ে বাঘ দু’টিকে মারার জন্য ধাওয়া করে। ধাওয়া খেয়ে বাঘ দু’টি দৌঁড়ে জঙ্গলের দক্ষিণ পাশে একটি গাছের উপর উঠে যায়। কিছুক্ষণ পর সেখান থেকে নেমে বাঘগুলো জঙ্গলের ভিতর গর্তে লুকিয়ে পড়ে। এ খবর এলাকায় ছড়িয়ে পড়লে শত শত নারী-পুরুষ তা দেখার জন্য ভিড় জমায়।

সংবাদ পেয়ে ফুলপুর উপজেলা নির্বাহী অফিসার জেবুন নাহার শাম্মী ও ফুলপুর থানা পুলিশ ঘটনাস্থলে যায় এবং স্থানীয়দের সতর্ক থাকার আহ্বান জানিয়ে বাঘ আবার দেখা গেলে প্রশাসনকে জানানোর জন্য বলেন। বাঘ আটক না হওয়ায় পুরো এলাকায় জনগণের মাঝে আতঙ্ক বিরাজ করছে। এলাকাবাসীর ধারণা বাঘ আবার বের হয়ে যেকোনও সময় মানুষকে আক্রমণ করতে পারে।

ফুলপুর উপজেলা নির্বাহী অফিসার জেবুন নাহার শাম্মী স্থানীয় জনগণকে সতর্ক করে মাইকিং করছেন এবং বাঘের কোন ক্ষতি ও হত্যা না করার জন্য আহবান জানাচ্ছেন।

এ রিপোর্ট লেখা পর্যন্ত বাঘটি আটক করা সম্ভব হয়নি। ধারণা করা হচ্ছে, ভারতের গারো পাহাড় থেকে পথ হারিয়ে বাঘ দু’টি লোকালয়ে আসতে পারে।

ফুলপুর উপজেলা নির্বাহী অফিসার জেবুন নাহার শাম্মী ঘটনার সত্যতা নিশ্চত করে বলেন, বাঘ ধরা যায়নি। আমি গিয়ে দেখতে পাইনি। ডিসি স্যারের নির্দেশনা আছে বাঘ মারা যাবে না। তবে বাঘ আবার লোকালয়ে আসলে তাদের ধরে সংশ্লিষ্ট কর্তৃপক্ষের কাছে দিতে হবে। বাঘ না মারার জন্য ও এলাকাবাসীকে সতর্ক থাকার জন্য মাইকিং করা হচ্ছে।

/অ-ভি

apps
  • সর্বশেষ
  • সর্বাধিক পঠিত